রবিবার রাত ১০:৫৪, ৮ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ. ২১শে এপ্রিল, ২০২৪ ইং

শেরপুর রক্তদান ও সমাজকল্যাণ সংস্থার মানবসেবা

৭৫৫ বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

“রক্ত হলো স্রষ্টার দান, স্বেচ্ছায় করবো রক্তদান” এই স্লোগানকে বুকে ধরে ২০১৪ সালের জানুয়ারির ১৯ তারিখ শেরপুর জেলার কিছু উদ্যোমী ও সাহসী তরুণরা মিলে একটি সংঘটন চালু করে যার নাম দেওয়া হয় “শেরপুর জেলা রক্তদান ও সমাজকল্যাণ সংস্থা”৷ এটা একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা।সংস্থাটির মূল কাজ হচ্ছে শেরপুর সদর হাসপাতাল সহ বিভিন্ন হাসপাতাল ও ক্লিনিকগুলিতে অসহায় গরিব ও মূমুর্ষ রোগীদের রক্তদান করে তাদের সাহায্য করা।

রক্তদানের পাশাপাশি তারা নানান রকম স্বেচ্ছাসেবীমূলক কাজ করে থাকেন। বিভিন্ন সরকারি দিবস গুলোতে শেরপুর জেলার বিভিন্ন জায়গায় বিনামুল্যে রক্তের গ্রুপ নির্ণয় ও রক্তদানে উৎসাহীকরণ কর্মসূচি পালন করে থাকেন। তাছাড়া মানুষের মাঝে সচেতনতা বৃদ্ধি করার লক্ষে লিফলেট বিতরণও প্রজেক্ট এর মাধ্যমে বিভিন্ন ভিডিও প্রদর্শন করে থাকেন।তাছাড়া বন্যার্তদের মাঝে শুকনা খাবার, বিভিন্ন উৎসবে যেমন ঈদুল ফিতর, ঈদুল আযহা, পুজায় ও শীতে শীত বস্ত্র বিতরণ করে থাকেন।

ইতোমধ্যে তারা সমাজের তরুনদেরকে আত্মনির্ভর করার জন্য সিভি রাইটিং, অনলাইন আবেদন বিষয়ে বিশেষ ওয়ার্কসপের আয়োজন করেছেন । আরো জানা যায়, এ বছরের আগস্ট মাসে তারা পাঁচ হাজার ব্যাগ রক্তদান সম্পন্ন করেছেন । সংস্থাটির সাধারণ সম্পাদক মো জাহাঙ্গীর আলম জানান, মানবসেবা পরম ধর্ম। রক্তদান খুবই মহৎ কাজ। বর্তমানে আমাদের দেশে প্রতি বছর গড়ে ১৬ লাখ ব্যাগ রক্ত লাগে যা আমাদের জনসংখ্যার তুলনায় খুবই কম। কিন্তু অনেকেই রক্তদানের উপকারীতা সম্পর্কে না জানা ও ভয়ের কারণে রক্ত দিতে চাইনা। তাই আমাদের লক্ষ্য মানুষকে সচেতন করা এবং সবার স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করা।

 

Some text

ক্যাটাগরি: নাগরিক সাংবাদিকতা, বিবিধ

[sharethis-inline-buttons]

Leave a Reply

আমি প্রবাসী অ্যাপস দিয়ে ভ্যাকসিন…

লঞ্চে যৌন হয়রানি