মঙ্গলবার বিকাল ৪:৪১, ১০ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ. ২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ ইং

সরাইলের এতিম ফারজানাকে খুঁজে পেতে অসহায় পিতার আর্তনাদ

৪৫২ বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলের এতিম কাজের মেয়ে ফারজানা আক্তারকে(১৩) খুঁজে পেতে আর্তনাদ করছেন তার হতদরিদ্র পিতা। মেয়েকে ফিরে পেতে সম্ভাব্য সকল চেষ্টা করেও ব্যর্থ অসহায় পিতা বিল্লাল মিয়া মানসিকভাবে ভেঙ্গে পড়েছেন। নিখোঁজ ফারজানা আক্তার উপজেলার সদর ইউনিয়নের সৈয়দটুলা গ্রামের পশ্চিমপাড়ার হতদরিদ্র রিকশা চালক বিল্লাল মিয়ার মেয়ে। গত ৩০ মার্চ ঢাকার উত্তরার ৫ নং সেক্টর, ১নং রোডের ২১ নং বাসা থেকে কাজের মেয়ে ফারজানা আক্তার নিখোঁজ হয় ।

এ ব্যাপারে নিখোঁজ ফারজানার পিতা বিল্লাল মিয়া বাদী হয়ে মঙ্গলবার (০৭-০৪-২০২০ ইং) সরাইল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। লিখিত অভিযোগে জানা যায়, বিল্লাল মিয়ার স্ত্রী সামসু বেগম গত ৫ বছর আগে রোগাক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়ার পর তার এতিম ৫ ছেলে মেয়ের মধ্যে ফারজানা আক্তার(১৩) ও শোভা আক্তার(৮)কে প্রায় ৪ বছর আগে তার বাড়ি থেকে নিয়ে তার বোন মিনারা বেগমের ননদ উপজেলার শাহবাজপুর এলাকার হনুফা বেগমের পুত্র হারুন মিয়ার মাধ্যমে ঢাকার উত্তরায় ৫নং সেক্টর, ১নং রোডের ২১ নং বাসায় কাজের মেয়ে হিসেবে নিয়ে যায়। সেই থেকে তার মেয়ে ফারজানা আক্তার ভালভাবেই দিনযাপন করে আসছিল বলে তিনি জানান। গত ৩০ মার্চ ফোনে হারুন মিয়া জানান, তার মেয়ে ফারজানা বাসার মালিকের সাথে ঝগড়া করায় তাকে ৮০ হাজার টাকা দিয়ে বাসা থেকে বের করে দিয়েছেন। সেই সাথে হারুন মিয়া বিল্লাল মিয়াকে আরও জানান, তার ছোট মেয়ে শোভা আক্তার ঢাকার উত্তরায় অন্য একটি বাসায়(১৪নং সেক্টর, ১০ নং রোড, ২৯নং বাসা) কাজের মেয়ে হিসেবে রয়েছে। এর পর থেকে বড় মেয়ে ফারজানাকে খুঁজে পাচ্ছেন না তিনি।

সরাইল থানার অফিসার ইনচার্জ সাহাদাত হোসেন টিটো বলেন, এ ব্যাপারে একটি অভিযোগ পেয়েছি। খোঁজ-খবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেখ মো. ইব্রাহীম, সহ-সম্পাদক

Some text

ক্যাটাগরি: মতামত

[sharethis-inline-buttons]

Leave a Reply

আমি প্রবাসী অ্যাপস দিয়ে ভ্যাকসিন…

লঞ্চে যৌন হয়রানি