রবিবার সকাল ৯:৩৭, ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ. ১৪ই জুলাই, ২০২৪ ইং

জয়পুরহাটে কৃষকের জমি কেটে বালু উত্তোলন: কৃষকরা জিম্মি ইজারাদারদের কাছে

৮৪৭ বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

জয়পুরহাটের ছোট যমুনা ও তুলশীগঙ্গা নদী থেকে বালু উত্তোলন কিছুতেই থামছেনা। কোন প্রকার নিয়ম নীতির তোয়াক্কা না করে অবৈধভাবে মেশিনের সাহায্যে, কখনো নদীর পার কেটে আবার কখনো আবাদী জমি থেকে অবাধে বালু উত্তোলন করছে এক শ্রেণীর স্বার্থান্বেষী মহল। ফলে নদী পারের সাধারন কৃষকরা অনেকটাই জিম্মি হয়ে পড়েছে বালু মহাল ইজারাদারদের কাছে।

জয়পুরহাটের পাচঁবিবি উপজেলার শিমুলতলী, সদর উপজেলার পুরানাপৈলসহ জেলার কয়েকটি স্থানে অবাধে চলছে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের মহাযজ্ঞ। এর ফলে ভেঙ্গে যাচ্ছে ওই এলাকার কৃষি জমি। কোথাও কোথাও কৃষকদের টাকার প্রলোভন দিয়ে জমি খনন করে বালু উত্তোলন করা হলেও শেষ পর্যন্ত সেই টাকাও দেওয়া হচ্ছেনা তাদের। টাকা চাইতে গেলেই জমির মালিককে উল্টো দেয়া হচ্ছে নানা হুমকি ধামকি।

জয়পুরহাট পাচঁবিবি উপজেলার শিমুলতলী গ্রামের হামিদা বেগম,খাসবাট্রা গ্রামের হাফিজার রহমান ও একই গ্রামের জয়নুল আবেদিন বলেন, শিমুলতলী গ্রামের ফয়সাল ও তার ভাই মিলে এখান থেকে মেশিন দিয়ে বালু তুলে বিক্রি করছে। এতে করে আমাদের জমি ভেঙ্গে নদীর সাথে বিলিন হয়ে যাচ্ছে। এ ব্যাপারে বালু উত্তোলনকারী ফয়সাল ও তার ভাইকে বারবার নিষেধ করা সত্বেও তা মানছেন না। বরং নানাভাবে হুমকি ধামকি দিয়েই চলেছে।

বালু উত্তোলনকারীদের নিষেধ করলে তো কোনদিনই শোনে না বলে আক্ষেপ করে ওই এলাকার কয়েকজন কৃষক বলেন, আমরা প্রশাসনকে অভিযোগ দিলে তারা সাময়িকভাবে বালু উত্তোলন বন্ধ করলেও কদিন বাদেই আবারও দেদারছে বালু উত্তোলন করতে থাকেন তারা। এ বিষয়ে কাউকে অভিযোগ করেও কোন লাভ হয়না। কোন খুটির জোড়ে এই কর্মকান্ড চালাচ্ছে তা খতিয়ে দেখা প্রযোজন।

এ ব্যাপারে বালু উত্তোলনকারী ফয়সালের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমরা বালুর ঘাট টাকা দিয়ে ডেকে নিয়েছি এবং বৈধভাবে বালু উত্তোলন করছি। আর যেসব কৃষকের জমি থেকে বালু উত্তোলন করা হয়েছে সেইসব জমির মালিককে উপযুক্ত টাকা দিয়েই বালু তুলছি। আমার বিরুদ্ধে যেসব অভিযোগ আনা হয়েছে তা শত্রুতা করে করা হয়েছে, এর সবই মিথ্যা ।

পাচঁবিবি উপজেলার নিবার্হী কর্মকর্তা নাদিম সরোয়ার বলেন, মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন করার কোন বিধান নেই, আর অন্যের জমি থেকেতো প্রশ্নই আসেনা। এ ধরনের অভিযোগ পেলে সে যেই হোক অবশ্যই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

শফিউল বারী রাসেল, জয়পুরহাট থেকে।

Some text

ক্যাটাগরি: খবর, নাগরিক সাংবাদিকতা

[sharethis-inline-buttons]

Leave a Reply

আমি প্রবাসী অ্যাপস দিয়ে ভ্যাকসিন…

লঞ্চে যৌন হয়রানি