রবিবার রাত ৮:৩৯, ৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ. ১৯শে মে, ২০২৪ ইং

ডিমের খোসা দিয়ে দৃষ্টিনন্দন ওয়ালমেট বানালেন একজন আলেম

২০৪৩ বার পড়া হয়েছে
মন্তব্য ০ টি

ডিম আমাদের অনেকেরই প্রিয় খাবার। কেউ খায় ভেজে, কেউ খায় সিদ্ধ করে। আবার কারো কারো সকালের নাস্তায় পরোটার সাথে ডিম না হলে যেন চলেই না। ডিম আমাদের প্রিয় খাবার হলেও ডিমের খোসাকে কিন্তু আমরা ফেলনা মনে করে ফেলে দেই, কোনো কাজে লাগাই না। অবাক করা বিষয় হলো, আমরা ফেলনা মনে করে ফেলে দেয়া সেই ডিমের খোসা দিয়ে দৃষ্টিনন্দন ওয়ালমেট বানিয়ে সবাইকে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের কলেজ পাড়ার হাফেজ মাওলানা আশরাফুল হাসান।

তিনি বর্তমানে একটি  নুরানী ও হাফেজিয়া মাদরাসা পরিচালনা করছেন। গতকাল রাতে (১৮অক্টোবর) কথা হয় তার সাথে। জানতে চেয়েছিলাম, ডিমের খোসা দিয়ে ওয়ালমেট বানানোর ভাবনাটা প্রথম মাথায় এলো কীভাবে? তিনি জানান, আমি কাপড়ে দানা জাতীয় কোনো জিনিসে গাম দিয়ে বসিয়ে একটা তাজমহল বানাতে চেয়েছিলাম। আর তা বানাতে বিভিন্ন শস্য দানা দিয়ে চেষ্টা করেছি। কিন্তু মনঃপূত হয়নি। এজন্য কাজটা বন্ধ ছিল।

পরে একদিন একটি ডিমের খোসা আমার পায়ের নীচে চাপা পড়ে ভেঙে টুকরো টুকরো হয়ে যায়।  আমি একটি টুকরো হাতে নিয়ে দেখি- খুব সুন্দর দেখা যাচ্ছে। তখন আমি ভাবলাম, আরে! ডিমের খোসার টুকরোগুলো গাম দিয়ে কাপড়ে বসালে তো চমৎকার দেখা যাবে। এই ভাবনা থেকেই আর কি ডিমের খোসা দিয়ে ওয়ালমেটটা বানানো।

এখানে আরেকটা বিষয়, ডিমের খোসার টুকরোগুলো একটা উল্টো এবং আরেকটা বাউ করে লাগিয়েছি। নাহলে কালারটা ঠিকভাবে ফোটে উঠতো না।

তিনি আরো জানান, আকর্ষণীয় ওয়ালমেটটি বানাতে কাপড়, গাম, বাঁধাই- সব মিলিয়ে প্রায় আট’শ টাকার মত খরচ হয়েছে। এবং ভবিষ্যতে তিনি এটা বাণিজ্যিকভাবে করার চিন্তা-ভাবনা করছেন বলেও জানান।

জুনায়েদ আহমেদ : সংবাদকর্মী

Some text

ক্যাটাগরি: খবর, নাগরিক সাংবাদিকতা

[sharethis-inline-buttons]

Leave a Reply

আমি প্রবাসী অ্যাপস দিয়ে ভ্যাকসিন…

লঞ্চে যৌন হয়রানি